অনূর্ধ্ব-১৯ দলের ইমন জাতীয় দলের তামিমের রেকর্ড ভেঙ্গে দিলো

অনূর্ধ্ব-১৯ দলের ইমন জাতীয় দলের তামিমের রেকর্ড ভেঙ্গে দিলো

বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে মিনিস্টার রাজশাহীর বিপক্ষে ২২১ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ৮ উইকেটের বড় জয় তুলে নিয়েছে ফরচুন বরিশাল।

এদিন মাত্র ৪২ বলে সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে দলকে জিতিয়েছেন পারভেজ হাসান ইমন। এই সেঞ্চুরিতে বাংলাদেশের দ্রুততম সেঞ্চুরিয়ান হিসেবে সবার উপরে জায়গা করে নিলেন এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান।

২২১ রানের লক্ষ্য দেখে একটা সময় মনে হচ্ছিলো এতো রান তাড়া করতে পারবে না বরিশাল। তবে সেই সমীকরণ পাল্টে দিয়েছেন তামিম ইকবাল-ইমনরা।

৩৭ বলে ৫৩ রান করে তামিম আউট হয়ে গেলেও শেষ পর্যন্ত দেশের ক্রিকেটে সবচেয়ে দ্রুততম সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন যুব বিশ্বকাপ জয়ী দলের এই ক্রিকেটার।

শুধু ইমনই নয়, এদিন সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন রাজশাহীর অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্ত। রাজশাহী দলপতির সেঞ্চুরি পেতে অবশ্য ৫২ বল খেলতে হয়েছে।

শেষ পর্যন্ত ৫৫ বলে ১০৯ রান করে ফেরেন শান্ত। তবে ইমনের ব্যাটে দল জয় পাওয়ায় ম্যান অব ম্যাচের পুরস্কারটা গেছে বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যানের ঝুলিতে।

ম্যাচ শেষে ইমন বলেন, ‘বড় রান তাড়া করতে হতো। চেষ্টা করেছি নিজের স্বাভাবিক খেলাটা খেলে যেতে। রান দেখার চেষ্টা করিনি। ওভার দেখেছি, ওভার দেখে খেলেছি।

আজকের উইকেটটা ভালো ছিল। আমরা সেই অনুযায়ীই ব্যাটিং করেছিলাম। অনেক ভালো লাগছে। আত্মবিশ্বাস বেড়েছে এমন ম্যাচ জিতে। সামনে আশা করি এটা কাজে লাগবে।‘

ইমনের আগে বাংলাদেশের হয়ে আরও বেশ কয়েকজনই টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে সেঞ্চুরি করেছেন। জাতীয় দলের হয়ে একমাত্র তামিম ছাড়া আর কেউ না থাকলেও ঘরোয়া ক্রিকেটে বেশ কয়েকজন সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছেন। যে তালিকায় নাম আছে মোহাম্মদ আশরাফুল, শাহরিয়ার নাফিস এবং সাব্বির রহমান।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বাছাইপর্বের ম্যাচে ওমানের বিপক্ষে ৫৯ বলে সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছিলেন তামিম। এটাই আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের একমাত্র সেঞ্চুরি।

এছাড়া বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগেও (বিপিএল) কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসের হয়ে ঢাকা ডাইনামাইটসের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করে দলকে শিরোপা জিতেছিলেন তিনি।

তবে বিপিএলে বাংলাদেশের হয়ে সর্বপ্রথম সেঞ্চুরিটা আসে নাফিসের ব্যাট থেকে। ওই ম্যাচে খুলনা রয়্যাল বেঙ্গলসের হয়ে ৬৭ বলে সেঞ্চুরি করেছিলেন।

ওই বছরই ঢাকা গ্লাডিয়েটর্সের হয়ে ৫৬ বলে সেঞ্চুরি করেছিলেন আশরাফুল। এ ছাড়া রাজশাহী কিংসের হয়ে ৫৩ বলে সেঞ্চুরি করেছিলেন সাব্বির।

তবে সবাইকে ছাড়িয়ে মাত্র ৫০ বলে সেঞ্চুরি করে সবচেয়ে দ্রুততম সেঞ্চুরিয়ান হিসেবে শীর্ষে ছিলেন তামিম। এরপর গেল বিপিএলে শান্ত তামিমের রেকর্ড ভাঙার সুযোগ পেলেও সেটা হয়নি।

ঢাকা প্লাটুনের বিপক্ষে ৫১ বলে সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে তালিকার দুইয়ে ছিলেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। মঙ্গলবার (৮ নভেম্বর) সেঞ্চুরি তুলে নিলেও সেটা আগেরটির চেয়ে কিছুটা ধীর গতির ছিল।

এছাড়া ওয়ানডে ফরম্যাটে মাত্র ৬৩ বলে সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে ওয়ানডে ক্রিকেটে বাংলাদেশের দ্রুততম সেঞ্চুরিয়ান হিসেবে তালিকার শীর্ষে রয়েছেন সাকিব আল হাসান।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মাত্র ৬৩ বলে সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছিলেন ওয়ানেডে ক্রিকেটের বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার। টি-টোয়েন্টি কাপে মাত্র ৪২ বলে সেঞ্চুরি করে তাদের সবাইকে ছাড়িয়ে গেছেন ইমন। যে কোনো ফরম্যাটে বাংলাদেশের হয়ে সবচেয়ে দ্রুততম সেঞ্চুরিয়ান এখন ইমন।

About অজয়

Check Also

Ideal VPN Apps For Android

Having the finest VPN software with regards to Android is a fantastic way to keep …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.